শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম

শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম

শবে মেরাজ মুসলমানদের জন্য একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ রাত। এ রাতে মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) আরশে আজিম পর্যন্ত ঊর্ধ্বলোক গমনের সৌভাগ্য লাভ করেন। এ সময় তিনি মহান আল্লাহ রব্বুল আলামিনের দিদার লাভ করেন এবং আল্লাহর কাছ থেকে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজের বিধান নিয়ে একই রাতে আবার দুনিয়াতে ফিরে আসেন। এ কারণেই রাতটি মুসলমানদের কাছে অত্যন্ত পবিত্র। বিভিন্ন নিয়ম অনুসরণ করে এই নামাজ পড়তে হবে। শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম জেনেনিন।

শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম

মুসলিমদের শবে মেরাজের রাতে ইবাদত-বন্দেগি করার জন্য বিভিন্ন সুন্নাত আমল রয়েছে। এর মধ্যে একটি গুরুত্বপূর্ণ আমল হল শবে মেরাজের নামাজ। এ নামাজ দুই রাকাত করে আদায় করতে হয়। নামাজের জন্য প্রথমে নিয়ত করতে হবে। নিয়তে করার জন্য একটি সুরা আছে। এরপর ২ রাকাত করে সর্বনিম্ন ১২ রাকাত নামাজ আদায় করবেন।

নাওয়াইতুআন উছাল্লিয়া লিল্লাহে তা’আলা রাক’আতায় ছালাতি লাইলাতিল মে’রাজ মুতাওইয়াজ্জিহান ইলা জিহাতিল কা’বাতিশ শারিফাতি আল্লাহু আক্বার। এটি হচ্ছে শবে মেরাজের নামাজের নিয়ত। এই নিয়ত পড়ার পড়ে নামাজ আদায় করতে হবে।

তাকবির

প্রথম রাকাতে সূরা ফাতিহা পড়ার পর নিম্নলিখিত দোয়াটি পড়তে হয়:

سُبْحَانَ اللهِ وَالْحَمْدُ لِلّٰهِ وَلَا إِلَهَ إِلَّا اللهُ وَاللهُ أَكْبَرُ

অর্থ: আল্লাহ মহান, সমস্ত প্রশংসা আল্লাহর জন্য, আল্লাহ ছাড়া কোন ইলাহ নেই, আল্লাহ সবচেয়ে বড়।

দ্বিতীয় রাকাতে সূরা ফাতিহা পড়ার পর নিম্নলিখিত দোয়াটি পড়তে হয়:

اللَّهُمَّ صَلِّ عَلَى مُحَمَّدٍ وَآلِ مُحَمَّدٍ

অর্থ: হে আল্লাহ! মুহাম্মদ (সা.) ও তাঁর পরিবারের উপর রহমত বর্ষণ করুন।

রুকুর পর

রুকুর পর উঠে তাকবির বলতে হয় এবং নিম্নলিখিত দোয়াটি পড়তে হয়:

سُبْحَانَ رَبِّيَ الْعَظِيْمِ

অর্থ: আমার মহান প্রতিপালককে আমি পবিত্র ঘোষণা করছি।

সিজদার পর

সিজদার পর বসে তাকবির বলতে হয় এবং নিম্নলিখিত দোয়াটি পড়তে হয়:

رَبِّ اغْفِرْ لِي

অর্থ: হে আমার প্রতিপালক! আমাকে ক্ষমা করুন।

দ্বিতীয় সিজদার পর

দ্বিতীয় সিজদার পর বসে তাকবির বলতে হয় এবং নিম্নলিখিত দোয়াটি পড়তে হয়:

رَبِّ اغْفِرْ لِي وَارْحَمْنِي وَاجْبُرْنِي وَارْفَعْنِي وَارْزُقْنِي وَاهْدِنِي وَعَافِنِي وَاعْفُ عَنِّي

অর্থ: হে আমার প্রতিপালক! আমাকে ক্ষমা করুন, আমার প্রতি রহমত করুন, আমাকে শক্তি দিন, আমাকে উন্নতি দিন, আমাকে রিজিক দিন, আমাকে হেদায়েত দিন, আমাকে সুস্থ রাখুন, আমাকে ক্ষমা করুন।

সালাম

প্রত্যেক রাকাতের শেষে সালাম ফিরিয়ে দ্বিতীয় রাকাত শুরু করতে হয়।

শবে মেরাজের নামাজ কত রাকাত

শবে মেরাজের নামাজের রাকাত সংখ্যা নিয়ে বিভিন্ন মত রয়েছে। তবে অধিকাংশ আলেমদের মতে, শবে মেরাজের নামাজ দুই রাকাত করে মোট ১২ রাকাত আদায় করতে হয়।শবে মেরাজের নামাজের রাকাত সংখ্যা সম্পর্কে একটি হাদিস রয়েছে। হাদিসে বলা হয়েছে, “যে ব্যক্তি শবে মেরাজের রাতে দুই রাকাত করে মোট ১২ রাকাত নামাজ আদায় করবে, সে ব্যক্তির গুনাহ মাফ হয়ে যাবে এবং সে জান্নাতে যাবে।”

এই হাদিসের ভিত্তিতে অধিকাংশ আলেমদের মত হল যে, শবে মেরাজের নামাজ দুই রাকাত করে মোট ১২ রাকাত আদায় করতে হয়।

তবে কিছু আলেম মনে করেন যে, শবে মেরাজের নামাজ চার রাকাত করে মোট ২৪ রাকাত আদায় করতে হয়। তাদের মতে, হাদিসে বর্ণিত “দুই রাকাত” শব্দটি “চার রাকাত” অর্থেও হতে পারে।এছাড়াও, কিছু আলেম মনে করেন যে, শবে মেরাজের নামাজ ছয় রাকাত করে মোট ৩৬ রাকাত আদায় করতে হয়। তাদের মতে, হাদিসে বর্ণিত “দুই রাকাত” শব্দটি “ছয় রাকাত” অর্থেও হতে পারে।তবে অধিকাংশ আলেমদের মতের ভিত্তিতে শবে মেরাজের নামাজ দুই রাকাত করে মোট ১২ রাকাত আদায় করাই উত্তম।

নামাজের নিয়ত বাংলা ও আরবিতে

বাংলা

নাওয়াইতুআন উছাল্লিয়া লিল্লাহে তা’আলা রাক’আতায় ছালাতি লাইলাতিল মে’রাজ মুতাওইয়াজ্জিহান ইলা জিহাতিল কা’বাতিশ শারিফাতি আল্লাহু আক্বার।

অর্থ

আমি কেবলা মুখি হয়ে শবে মেরাজের দুই রাক’আত নফল নামাজ আল্লাহর ওয়াস্তে আদায় করিতেছি। আল্লাহু আকবার।

আরবি

نويت أن أصلي لله تعالى ركعتين صلاة ليلة المعراج متوجها إلى القبلة الشريفة الله أكبر.

শবে মেরাজের নামাজ পড়ার নিয়ম 

শবে মেরাজের নামাজ দুই রাকাত করে মোট ১২ রাকাত আদায় করতে হয়। প্রত্যেক রাকাতে চারটি তাকবির বলা হয়। প্রথম দুই তাকবির ফরজ এবং পরের দুই তাকবির সুন্নত।

প্রথম রাকাত

  • তাকবির
  • সূরা ফাতিহা
  • কোনো একটি সূরা বা আয়াত
  • রুকুর পর তাকবির
  • রুকুর দোয়া
  • সিজদার পর তাকবির
  • সিজদার দোয়া
  • দ্বিতীয় সিজদার পর তাকবির
  • দ্বিতীয় সিজদার দোয়া
  • সালাম

দ্বিতীয় রাকাত

  • তাকবির
  • সূরা ফাতিহা
  • কোনো একটি সূরা বা আয়াত
  • রুকুর পর তাকবির
  • রুকুর দোয়া
  • সিজদার পর তাকবির
  • সিজদার দোয়া
  • দ্বিতীয় সিজদার পর তাকবির
  • দ্বিতীয় সিজদার দোয়া
  • সালাম

শেষ কথা

শবে মেরাজের নামাজ আদায়ের নিয়ম ও ফজিলত সম্পর্কে মুসলমানদের সচেতন করা প্রয়োজন। এতে করে তারা এ রাতটিকে আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনের জন্য কাজে লাগাতে পারবে। শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম সঠিকভাবে পালন করার জন্য বিভিন্ন বিষয়ে খেয়াল রাখতে হবে। নামাজের পূর্বে শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম গুলো জেনে নিবেন।

আরও দেখুনঃ

শবে মেরাজ কবে ২০২৪

One Comment on “শবে মেরাজের নামাজের নিয়ম”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *